Jute-Industry-Project-Recruitment-2022

আপনি কি সরকারি চাকরি খুঁজছেন? তবে এই খবরটি আপনার জন্য। পশ্চিমবঙ্গ সরকারের তরফ থেকে রাজ্য কর্মসংস্থান বৃদ্ধি করার জন্য এবং বেকারত্ব দূর করার জন্য পাট শিল্পে প্রচুর কর্মী নিয়োগের বিজ্ঞপ্তি জারি হয়েছে। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দোপাধ্যায়ের অনুপ্রেরণায় পশ্চিমবঙ্গ সরকারের শ্রম দপ্তরের নিয়ন্ত্রণাধীন কর্মসংস্থান ব্যাংকের নথিভূক্ত কর্মপ্রার্থীদের জন্য বর্তমানে ১২ টি বিভিন্ন কর্মসংস্থান কেন্দ্রে পাট শিল্পে চাকরিমুখী বিভিন্ন প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা করা হয়েছে। সরাসরি প্রশিক্ষণের মাধ্যমে নিশ্চিত চাকরির ব্যবস্থা করবে সরকার। যে কোনো পশ্চিমবঙ্গবাসী মহিলা-পুরুষ উভয়েই আবেদন করতে পারবেন। চলুন বিস্তারিত জেনে নেওয়া যাক।

• এই প্রশিক্ষণের উদ্দেশ্য কি?
পশ্চিমবঙ্গের প্রায় কয়েক লক্ষ মানুষ পাট শিল্পের সাথে প্রত্যক্ষ ও পরোক্ষভাবে যুক্ত। এই শিল্পে দক্ষ ও প্রশিক্ষিত শ্রমিকের ঘাটতি মেটানোর উদ্দেশ্যে এবং কর্মসংস্থান বাড়ানোর উদ্দেশ্যে রাজ্য সরকারের জনমুখি প্রয়াস। উপযুক্ত উন্নত মানের প্রশিক্ষণের মাধ্যমে দক্ষ শ্রমিক গড়ে তোলার উদ্দেশ্যে এই প্রশিক্ষণ দেওয়া হবে।

• প্রশিক্ষণের ধরন ও সময়সীমা:-

(১) একমাস প্রথাগত প্রশিক্ষণ:- এই প্রশিক্ষণ দেওয়া হচ্ছে ১২ টি জেলা কর্ম বিনিয়োগ কেন্দ্রে ( বাঁকুড়া, হাওড়া, দমদম, ব্যারাকপুর, চুঁচুড়া, পুরুলিয়া, ঝাড়গ্রাম, বোলপুর, কালনা, শ্রীরামপুর, উলুবেরিয়া, বসিরহাট)।

(২) দুইমাস হাতে কলমে:- এই প্রশিক্ষণ রাজ্যের বিভিন্ন পাটকল গুলিতে দেওয়া হচ্ছে। প্রশিক্ষণের সময় উপযুক্ত বৃত্তি প্রদান করা হবে।

• এই প্রশিক্ষণ নিতে কি কি যোগ্যতা প্রয়োজন?
(১) এমপ্লয়মেন্ট ব্যাঙ্কে ন্যূনতম সাক্ষর হিসেবে নথিভুক্ত থাকতে হবে।
(২) বয়স ১৮ এর ঊর্ধ্বে হতে হবে।

• কি কি শেখানো হবে প্রশিক্ষণের মাধ্যমে?
এই প্রশিক্ষণের মাধ্যমে পাট শিল্পের প্রাথমিক কাজগুলি শেখানো হবে। একমাস প্রথাগত প্রশিক্ষণের মাধ্যমে পাটের বাছাই থেকে শুরু করে পাটকে নরম করা, পাটকে পাইলিং করা, পাটের বিভিন্ন কার্ডিং পদ্ধতি, পাটের বিভিন্ন রকম ড্রয়িং পদ্ধতি, স্পিনিং পদ্ধতি, ওয়েল্ডিং পদ্ধতি, বিমিং পদ্ধতি, উইভিং পদ্ধতি, পাটের বিভিন্ন রকম তাঁত সম্পর্কে প্রাথমিক ধারণা থেকে বস্তার ক্যালেন্ডারিং পদ্ধতি, বিভিন্ন রকমের সেলাই পদ্ধতি, বস্তা ছাপানো সম্পর্কে প্রাথমিক ধারণা audio-visual পদ্ধতির মাধ্যমে শেখানো হবে।

• আর্থিক সুযোগ-সুবিধা:- দুই মাস হাতে-কলমে প্রশিক্ষণ এর সময় সংশ্লিষ্ট জুটমিলে বিনামূল্যে থাকা ও খাওয়ার ব্যবস্থা করা হয়েছে। প্রশিক্ষণ শেষে দৈনিক ৩৭০ টাকা বেতন ও ১৫ টাকা দৈনিক হাজিরা উৎসাহ ভাতা হিসেবে দেওয়া হবে। এছাড়াও আইন অনুযায়ী বিভিন্ন রকম সুবিধা, যেমন:- প্রভিডেন্ট ফান্ড, এমপ্লয়িজ টেস্ট ইন্সুরেন্স, বোনাস, উৎসবের ছুটির মজুরি, সংবিধিবদ্ধ ছুটি এবং গ্র্যাচুইটি দেওয়া হবে।

° আপনি যদি আগ্রহী হন তবে অবশ্যই সবার আগে অফিসিয়াল নোটিফিকেশনটি ডাউনলোড করে ভালো করে পড়ে নিন, এবং তারপর আবেদন করুন।

• অফিসিয়াল নোটিফিকেশন:- Link

বিঃ দ্রঃ আমরা শুধুমাত্র বিভিন্ন সরকারি ও বেসরকারি সংস্থার অফিসিয়াল নোটিফিকেশনের ওপর ভিত্তি করে আপনাদের সামনে নিত্ত নতুন চাকরির আপডেট তুলে ধরি। আমরা নিজেরা কোনো রকম চাকরি প্রদান করি না।

সমস্ত চাকরির খবর সবার আগে পেতে ডানদিকের নীচে থাকা টেলিগ্রাম আইকনে ক্লিক করে আমাদের টেলিগ্রাম গ্রুপে যুক্ত হন।