West-Bengal-Ration-Card-update

আগামী জুন মাস থেকে রাজ্যের ১৬ লক্ষ রেশন কার্ড বাতিল হতে চলেছে রাজ্যে, এমনই নির্দেশিকা জারি করলো রাজ্যের খাদ্য দপ্তর। কাদের কাদের রেশন কার্ড বাতিল হতে চলেছে? চলুন জেনে নেওয়া যাক।

আগামী জুন মাস থেকে রাজ্যের ১৬ লক্ষ বাসিন্দার রেশন কার্ড বাতিল করতে চলেছে রাজ্য সরকার। নির্দেশিকায় জানা গিয়েছে, পুরোনো রেশন কার্ড অর্থাৎ নন ডিজিটাল রেশন কার্ড গ্রাহকদের রেশন কার্ড বাতিল করে দেওয়া হবে আগামী জুন মাস থেকে।

বর্তমানে গোটা রাজ্যে নন ডিজিটাল রেশন কার্ডপেপার রেশন কার্ড ধারী গ্রাহকের সংখ্যা প্রায় সাড়ে ১৭ লক্ষ, এই মুহুর্তে তারা শুধু কেরোসিন তেল পেয়ে থাকেন। মাথা পিছু তাদের কেরোসিন তেল দেওয়া হয় ১৫০ মিলিলিটার। কিন্তু জুন মাস থেকে বন্ধ হতে চলেছে এই ১৫০ মিলিলিটার কেরোসিন তেলও।

পুরোনো ও নন ডিজিটাল রেশন কার্ডে খাদ্যশস্যের সুবিধা বহুদিন আগেই বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। সবত্রই এখন ডিজিটাল রেশন কার্ড ব্যবহার করা হয়ে থাকে তবুও রাজ্যে নন ডিজিটাল রেশন কার্ডের সংখ্যা প্রচুর, তাই খাদ্য দপ্তর সূত্রে নোটিশ জারি করে জানানো হয়েছে যতশীঘ্র সম্ভব নন ডিজিটাল বা পেপার রেশন কার্ড ধারী গ্রাহকেরা যেন তাদের রেশন কার্ড ডিজিটাল রেশন কার্ডে পরিবর্তন করে নেন।

পয়লা জুন থেকে গোটা রাজ্যে এই নিয়ম লাগু হতে চলেছে, ব্যাতিক্রম থাকবে শুধু দার্জিলিংএর কিছু এলাকা। সেখানে আরও কিছুদিন নন ডিজিটাল বা পেপার রেশন কার্ডের মাধ্যমে কেরোসিন তেল দেওয়া হবে।

খাদ্য দপ্তরের এক আধিকারিক জানিয়েছেন যদি গ্রাহকেরা নন ডিজিটাল রেশন কার্ড বা পেপার রেশন কার্ড বদলে ডিজিটাল রেশন কার্ড তৈরি করে নেন তবে তাদেরই সুবিধা কারন নন ডিজিটাল রেশন কার্ডে শুধু মাত্র কেরোসিন পাওয়া যেন তাও ১৫০ মিলিলিটার কিন্তু ডিজিটাল রেশন কার্ডে কেরোসিন পাওয়া যাবে ৫০০ মিলিলিটার তার ওপর খাদ্যশস্যেরও সুবিধা পাবে গ্রাহকেরা।

গোটা রাজ্যে নন ডিজিটাল রেশন কার্ড ধারীর সংখ্যা প্রায় সাড়ে ১৭ লক্ষ, সেখান থেকে দার্জিলিং বাদ দিলে প্রায় ১৬ লক্ষ গ্রাহকের ওপর কোপ পড়তে চলেছে আগামী পয়লা জুন থেকেই। দার্জিলিংয়ে সবে ডিজিটাল রেশন কার্ড দেবার কাজ শুরু হয়েছে তাই সেই জেলার কিছু অঞ্চলকে এই লিস্ট থেকে বাদ রাখা হয়েছে।

• অফিসিয়াল ওয়েবসাইট:- Link

এরকম আর‌ও তথ্য সবার আগে পেতে ডানদিকের নীচে থাকা টেলিগ্রাম  আইকনে ক্লিক করে আমাদের টেলিগ্রাম গ্রুপে যুক্ত হন।