Jio-Recharge-Offers

বর্তমানে দেশের অন্যতম জনপ্রিয় টেলিকম সংস্থা হল রিলায়েন্স জিও (Jio Recharge Offers)। প্রায় ৪০০ মিলিয়নেরও বেশি গ্রাহক রয়েছে রিলায়েন্স জিও এর আয়ত্তে। যদিও ২০২১ সালের শেষে অন্যান্য টেলিকম সংস্থাগুলির সাথে জিওর রিচার্জ প্যাকগুলিরও দাম বাড়ানো হয়েছিলো, তবু আজও জিওর অনেক ধরনের প্রিপেইড প্ল্যান রয়েছে যেগুলো শুধুমাত্র গ্রাহকদের চাহিদা অনুযায়ী তৈরি করা হয়েছে। তবে এইসকল রিচার্জ প্ল্যানগুলির মধ্যে সবচেয়ে বেশি জনপ্রিয় হল ডেইলি ডেটা প্যাক।

এই প্ল্যানগুলিতে দৈনিক ১ জিবি ডেটা থেকে ৩ জিবি পর্যন্ত ডেটা পেতে পারেন গ্রাহকরা। তবে ডেইলি ডেটা প্যাকের সমস্ত প্ল্যানগুলির মধ্যে সবচেয়ে বেশি চাহিদা রয়েছে সেই রিচার্জ প্যাকগুলির যেগুলোতে দৈনিক ১ জিবি ডেটা পাওয়া যায়। তবে এইসমস্ত প্যাকগুলো একই দামে পাওয়া যায় না। কোনোটার দাম বেশি আবার কোনোটার দাম কম।

তবে চলুন দেখে নেওয়া যাক কোন কোন রিচার্জ প্যাকে আপনি দৈনিক ১ জিবি ডেটা পেতে পারেন আর তার আরও কি কি সুবিধা রয়েছে:-

১. ১৪৯ টাকার রিচার্জ প্যাক:-
এই রিচার্জ প্যাকের দরুণ আপনি দৈনিক ১ জিবি ডেটার পাশাপাশি পেয়ে যাবেন আনলিমিটেড ভয়েস কল এবং প্রতিদিন ১০০ টি করে ফ্রি এসএমএস পাঠানোর সুবিধা। এই প্যাকটির বৈধতা ২০ দিন। এছাড়াও এই রিচার্জ প্যাকে সমস্ত জিও অ্যাপ ব্যবহার করার সুযোগ পাবেন আপনি।

২. ১৭৯ টাকার রিচার্জ প্যাক:-
এই রিচার্জ প্যাকেও আপনি দৈনিক ১ জিবি ডেটা পাবেন। এর সঙ্গেই পেয়ে যাবেন আনলিমিটেড ভয়েস কল এবং রোজ ১০০ টি করে ফ্রি এসএমএস পাঠানোর সুবিধা। এই রিচার্জ প্যাকটির বৈধতা ২৪ দিন। এই রিচার্জ প্যাকের সাথেও আপনি পেয়ে যাবেন সমস্ত জিও অ্যাপ ব্যবহারের সুযোগ। তবে এই রিচার্জ প্যাকে দৈনিক ডেটার কোটা পূরণ হলে ইন্টারনেট স্পিড ৬৪ কেবিপিএস হয়ে যায়।

৩. ২০৯ টাকার রিচার্জ প্যাক:-
রিলায়েন্স জিওর এই রিচার্জ প্যাকেও আপনি দৈনিক ১জিবি ডেটা পাবেন। এর সাথে আনলিমিটেড ভয়েস কল এবং রোজ ১০০ টি করে ফ্রি এসএমএস অফার করা হয়। এই রিচার্জ প্ল্যানের বৈধতা ২৮ দিন। এক্ষেত্রেও আপনি পেয়ে যাবেন সমস্ত জিও অ্যাপের সাবস্ক্রিপশন। তবে এই প্যাকেও দৈনিক ডেটা শেষ হলে ইন্টারনেট স্পিড ৬৪ কেবিপিএস হয়ে যায়।

এই মুহুর্তে রিলায়েন্স জিওর এই তিনটি প্যাকেই আপনি পেয়ে যাবেন দৈনিক ১ জিবি ডেটা এবং অন্যান্য সুযোগসুবিধা।

পোষ্টটি ভালোলাগলে বন্ধুদের সঙ্গে শেয়ার করুন এবং এরকম আর‌ও তথ্য পেতে আজই যুক্ত হন আমাদের টেলিগ্রাম চ্যানেলে