SBI-Bank-Account-Fraud

অনলাইনে প্রতারকদের দ্বারা প্রভাবিত হয়ে ব্যাংক অ্যাকাউন্টের টাকা গায়েব হওয়া নতুন নয় (SBI Bank Account Fraud)। দেশের বহু মানুষ এইরকম আর্থিক প্রতারণার শিকার হয়েছেন। নিজের রোজগারের টাকা এভাবে খুঁইয়ে দিশেহারা হয়ে পড়েছেন অনেকে। এরই মধ্যে প্রতারকরা সম্পূর্ণ নতুন এক পদ্ধতির মাধ্যমে আপনার ব্যাংক অ্যাকাউন্টের টাকা হাতানোর উদ্দেশ্যে নেমে পড়েছেন। এবিষয়ে PIB (Press Information Bureau) স্টেট ব্যাংক অফ ইন্ডিয়ার গ্রাহকদের সতর্ক করার চেষ্টা করেছেন।

• কীভাবে এই প্রতারণা (Fraud) করা হচ্ছে?
(১) প্রতারকদের তরফে আপনার মোবাইলে ‘আপনার স্টেট ব্যাংক অ্যাকাউন্ট বন্ধ হয়ে গিয়েছে…..‘ এরকম ধরনের মেসেজ পাঠানো হচ্ছে এবং তার সাথে একটি লিংকও দিয়ে দেওয়া হচ্ছে।

(২) মেসেজে আরও বলা হচ্ছে যে, এই লিংকে ক্লিক করলে আপনার অ্যাকাউন্ট ঠিক হয়ে যাবে।

কিন্তু লিংকে ক্লিক করলেই আপনার অ্যাকাউন্টের সব টাকা গায়েব !!! আসলে এইসব ফন্দিবাজরা এমন ধরনের লিংক তৈরী করে রাখছেন যে, সেই লিংকে ক্লিক করলেই আপনার SBI অ্যাকাউন্টের সমস্ত ব্যক্তিগত তথ্য এক নিমিশেই উনাদের হাতে চলে যাচ্ছে। ফলে আপনার অ্যাকাউন্টের সমস্ত টাকা উনারা হাতিয়ে নিচ্ছেন।

আরও পড়ুন:- আপনার মোবাইল থেকে কী করে লোকাল ট্রেনের টিকিট কাটবেন

এই রকমের ব্যাংক প্রতারণা (Bank Fraud) থেকে বাঁচার জন্য কী করবেন?

(১) সবসময় সতর্ক থাকবেন। এইরকম মেসেজ আসলে একটু ভালোভাবে দেখলেই বুঝতে পারবেন বিভিন্ন ভুয়ো নম্বর, আইডি থেকে এইসব SMS আসছে।

(২) এইরকম ভুয়ো মেসেজগুলোতে অনেকসময় ইংরেজি বানান ভুল, ব্যাকরণগত ভুল ইত্যাদিও রয়েছে।

(৩) SBI সবসময় নিজেদের অফিসিয়াল নম্বর থেকেই SMS পাঠায়।

(৪) তাই এইরকম মেসেজ আসলে সেটিকে পাত্তা দেবেন না। বরং যেই নম্বর থেকে SMS এসেছে সেটিকে ব্লক করে দেবেন।

(৫) যদি কোনো কারণে এইরকম ব্যাংক জালিয়াতির শিকার হয়ে থাকেন, তাহলে অতি দ্রুত সাইবার পুলিশে অভিযোগ জানাবেন। সাইবার পুলিশের তরফ থেকে বারংবার সচেতন করা হয়েছে যে, ব্যাংক প্রতারণার স্বীকার হলে ২৪-৭২ ঘন্টার মধ্যে অভিযোগ জানালে বেশিরভাগ ক্ষেত্রেই আপনার টাকা উদ্ধার সম্ভব হয়। এর থেকে বেশি দেরিতে অভিযোগ জানালে টাকা উদ্ধারের সম্ভাবনা কম।

এর আগেও অনলাইন kyc লটারি জেতার নাম করে ইত্যাদি বিভিন্ন রকম ভুয়ো মেসেজের মাধ্যমে প্রতারকরা মানুষের টাকা হাতানোর চেষ্টা করেছেন। তাই আপনার মোবাইলে এই প্রকার ভুয়ো মেসেজ আসলে সতর্ক থাকুন, সাবধানে থাকুন। উল্লেখ্য, স্টেট ব্যাংক ছাড়াও অন্যান্য জনপ্রিয় ব্যাংকগুলোর গ্রাহকদের মোবাইলেও এইরকমের ভুয়ো SMS আসতে পারে তাই তারাও সতর্ক থাকুন। একটু অসতর্ক হলেই আপনার টাকা গায়েব হয়ে যেতে পারে।

এইরকম আরও নানান গুরুত্বপূর্ণ আপডেট পেতে আমাদের ওয়েবসাইটটি ফলো করুন এবং নীচের ডানদিকের আইকনে ক্লিক করে আজই যুক্ত হন আমাদের টেলিগ্রাম চ্যানেলে