Apply-to-Pradhan-Mantri-Awas-Yojana-in-this-process-and-get-upto-1-lakh-40-thousands-rupees

আপানরা অনেকেই প্রধানমন্ত্রী আবাস যোজনার (PM Awas Yojana) নাম শুনেছেন। কিন্ত কীভাবে এই প্রকল্পে আবেদন করবতে হয় সে বিষয়ে অনেকেই অবগত নন। তাই আজকের এই প্রতিবেদনে কীভাবে প্রধানমন্ত্রী আবাস যোজনায় আবেদন করবেন সে বিষয়ে বিস্তারিত আলোচনা করা হলো।

• প্রধানমন্ত্রী আবাস যোজনা কী (PM Awas Yojana)?
প্রধানমন্ত্রী আবাস যোজনা হলো কেন্দ্র সরকার কর্তৃক চালু করা একটি অত্যন্ত জনপ্রিয় প্রকল্প যার মাধ্যমে গৃহহীন কিংবা পাকা বাড়ি না থাকা পরিবারদের পাকা বাড়ি বানানোর জন্য আর্থিক সহায়তা প্রদান করা হয়। এই টাকা সরাসরি আপনার ব্যাংক অ্যাকাউন্টে দেওয়া হয়।

• কতো টাকা করে পাবেন?
পিএম আবাস যোজনার (PM Awas Yojana) মাধ্যমে বাড়ি বানানোর জন্য আবেদনকারীর ব্যাংক অ্যাকাউন্টে তিনটি কিস্তিতে ১,৪০,০০০ টাকা দেওয়া হয়। প্রথম কিস্তি – ৬০,০০০ টাকা, দ্বিতীয় কিস্তি – ৫০,০০০ টাকা এবং তৃতীয় কিস্তি – ১০,০০০ টাকা। এর সাথে NRGS থেকে ১০০ টি মেইনটেইন্স ফি এর মাধ্যমে প্রায় ২১,০০০ টাকা অবধি দেওয়া হয়। এছাড়া এবার থেকে বাড়ির সাথে শৌচালয় বানানোর জন্য আরও ১২,০০০ টাকা দেওয়া হবে বলে সূত্রের খবর। সেইজন্য এই প্রকল্পের নাম আবাস প্লাস করা হচ্ছে।

অগ্নিপথ প্রকল্পের লিখিত পরীক্ষার সিলেবাস, Question Paper ও পরীক্ষার প্যাটার্ন কিরকম হবে? বিস্তারিত জেনে নিন

• কারা আবাস যোজনায় আবেদন করতে পারবেন?
(১) ভারতবর্ষের নাগরিক হতে হবে।
(২) পাকা বাড়ি থাকলে হবে না।
(৩) পরিবারের বার্ষিক আয় দরিদ্রসীমার নীচে হতে হবে।
(৪) এই প্রকল্পে আবেদনকারী ব্যক্তি যেনো রাজ্যের কিংবা অন্য কোনো সরকারি প্রকল্পের অধীনে বাড়ি বানানোর জন্য আর্থিক সহায়তা পেয়ে না থাকেন।

• আবাস যোজনায় আবেদন করতে কী কী লাগে?
(১) আবেদনকারীর পাসপোর্ট সাইজের ফটো
(২) রেশন কার্ডের জেরক্স
(৩) আধার কার্ডের জেরক্স
(৪) ভোটার কার্ডের জেরক্স
(৫) ব্যাংক পাসবুকের প্রথম পাতার জেরক্স।

• পিএম আবাস যোজনায় কীভাবে আবেদন করবেন?
যারা গ্রামে বসবাস করেন তারা এই প্রকল্পে আবেদন করতে চাইলে স্থানীয় পঞ্চায়েত অথবা বিডিও অফিসে গিয়ে যোগাযোগ করুন। সেখান থেকে পিএম আবাস যোজনার আবেদনের জন্য একটি ফর্ম নিয়ে তা ফিল আপ করুন এবং উপরোক্ত ডকুমেন্টসগুলো অ্যাটাচ করে তা জমা দিবেন। আর যারা শহরাঞ্চলে বাস করেন তারা https://pmaymis.gov.in/ এই ওয়েবসাইটে গিয়ে অনলাইনে আবেদন করতে পারবেন।

কিছুদিন পরে সরকারি আধিকারিকরা আপনার সমস্ত তথ্য যাচাই করে তা সত্যি মনে করলে আপনি পিএম আবাস যোজনার প্রকল্পের উপভোক্তা হিসেবে গণ্য হবেন এবং আপনার ব্যাংক অ্যাকাউন্টে তিনটি কিস্তির মাধ্যমে সরাসরি পিএম আবাস যোজনার টাকা ঢুকে যাবে।

সরকারি প্রকল্প সম্পর্কিত এইরকম আরও নানান গুরুত্বপূর্ণ খবর পেতে আমাদের ওয়েবসাইটটি ফলো করুন এবং নীচের ডানদিকের টেলিগ্রাম আইকনে ক্লিক করে আজই জয়েন হোন আমাদের টেলিগ্রাম চ্যানেলে