You-can-get-lakhs-of-rupees-by-investing-only-333-rupees-in-the-post-office

সাধারণ মানুষের কথা মাথায় রেখে পোস্টঅফিসগুলি বেশ কিছু স্কিম এনেছে (India Post Scheme)। যাতে সাধারণ মানুষ তাদের কষ্টার্জিত সঞ্চয় নিরাপদে বিনিয়োগ করতে পারবে এবং তাদের ভবিষ্যৎ সুরক্ষিত করতে পারবে। এই স্কিমগুলির মাধ্যমে ক্ষুদ্র ক্ষুদ্র সঞ্চয় প্রকল্পগুলি দীর্ঘমেয়াদি ভালো অঙ্কের রিটার্ন এনে দেয় সাধারণ মানুষের কাছে।

পোস্ট অফিসের এরকমই একটি স্কিম হলো, পোস্ট অফিস রেকারিং ডিপোজিট অ্যাকাউন্ট (RD)। এই স্কিমে সর্বনিম্ন মাসিক ১০০ টাকা থেকে বিনিয়োগ করা যায়। সর্বোচ্চ যতো খুশি টাকা মাসিক বিনিয়োগ করা যাবে। এছাড়াও অ্যাকাউন্ট খোলার ১ বছরের মধ্যে ডিপোজিট ব্যালেন্সের ৫০ শতাংশ পর্যন্ত তুলে নেওয়া যাবে। এই স্কিম থেকে ৫.৮ শতাংশ হারে চক্রবৃদ্ধি সুদ পাওয়া যাবে।

পোস্ট অফিসের এই স্কিমটিতে (India Post Scheme) যদি দৈনিক ৩৩৩ টাকা করে অর্থাৎ মাসিক ১০ হাজার টাকা জমা করা যায়, তবে ১ বছরের মোট বিনিয়োগের পরিমাণ হবে ১.২০ লক্ষ টাকা। যা ১০ বছরে হবে ১২ লক্ষ টাকা। এরসাথে ১০ বছরের সুদের পরিমাণ হবে ৪ লক্ষ ২৬ হাজার ৪৭৬ টাকা (৪,২৬,৪৭৬ টাকা)। সবমিলিয়ে ১০ বছর পর বিনিয়োগকারী পেয়ে যাবে ১৬ লক্ষ টাকারও বেশি। রেকারিং ডিপোজিটটির মোট সময়কাল ৫ বছর হলেও বিনিয়োগকারী চাইলে তা পরবর্তী ৫ বছরের জন্যে বাড়িয়ে নিতে পারবে।

অর্থাৎ প্রতিদিন ৩৩৩ টাকা বিনিয়োগ করলে ম্যাচুরিটি হলে রিটার্ন পাওয়া যাবে ১৬ লক্ষ টাকারও বেশি। এইসব স্কিমের ক্ষেত্রে ব্যাংকের তুলনায় সুদের হার বা ইন্টারেস্ট বেশি দেয় পোস্ট অফিস। এই স্কিমটি যথেষ্টই লাভজনক এবং সাধারণ মানুষের মধ্যে জনপ্রিয়।

তবে এই স্কিমে বিনিয়োগের ক্ষেত্রে প্রতি মাসে মাসে টাকা জমা অর্থাৎ ডিপোজিট করতে হবে। পরপর ৪ মাস মাসিক ইনস্টলমেন্ট জমা না দিলে বন্ধ হয়ে যাবে রেকারিং ডিপোজিট অ্যাকাউন্টটি। তা পুনরায় চালু করতে চাইলে ২ মাসের মধ্যে ১ শতাংশ পেনাল্টি দিয়ে অ্যাকাউন্টটি আবার চালু করতে হবে।

এইরকম আরও নানান গুরুত্বপূর্ণ আপডেট পেতে আমাদের পেজটি ফলো করুন এবং নীচের ডানদিকের আইকনে ক্লিক করে আজই যুক্ত হন আমাদের টেলিগ্রাম চ্যানেলে