The-price-of-oil-has-been-decreased-15-rupees-People-breathe-a-sigh-of-relief

মূল্যস্ফীতির এই বাজারে এই খবর আপনাকে স্বস্তি দেবে। সমগ্র দেশে কমছে ভোজ্য তেলের (Edible Oil) দাম। সারাদেশে বর্তমানে প্রায় সবকিছুরই দাম অগ্নিমূল্য হয়ে গিয়েছে। প্রয়োজনীয় জ্বালানি, রান্নার গ্যাসের সিলিন্ডার, গুরুত্বপূর্ণ ওষুধ, খাদ্যসামগ্রী প্রায় সবকিছুরই দাম আকাশছোঁয়া। এমন পরিস্থিতিতে সাধারণ মানুষের নাজোহাল অবস্থা। এমন সময়ে ভোজ্য তেলের দাম ১৫ টাকা কমানোর বিষয়টি যথেষ্ট ইতিবাচক। শীঘ্রই নতুন পরিবর্তিত দামের ভোজ্য তেল বাজারে পাওয়া যাবে।

সম্প্রতি ভোজ্য তেলের দাম বহুগুন বেড়ে যাওয়ায় দেশের নাগরিকদের জন্য যতো পরিমান ভোজ্য তেলের প্রয়োজন তার থেকে ৬০% বেশি আমদানি করেছে কেন্দ্র। ফলে বর্তমানে দেশে যথেষ্ট পরিমান ভোজ্য তেল রয়েছে। আবার আন্তর্জাতিক বাজারে খাওয়ার তেলের দাম কমেছে (Oil Price)। তাছাড়া ভোজ্য তেল উৎপাদনকারী সংস্থাগুলো তেলের দাম কমিয়েছে। ফলে ডিস্ট্রিবিউটরাও সস্তায় ভোজ্য তেল পাচ্ছেন। সবমিলিয়ে এই পরিস্থিতিই ভোজ্য তেলের দাম কমানোর আদর্শ সময় ছিল। ফলে স্বভাবতই সাধারণ নাগরিকরাও যেনো এর সুফল পায় সেজন্য দাম কমানোর পরিকল্পনা করছিলো কেন্দ্র সরকার। সেইজন্য জুলাই মাসে নতুনভাবে ভোজ্য তেলের দাম নির্ধারণ করার জন্য দেশের ভোজ্য তেল উৎপাদনকারী সংস্থাগুলোর সঙ্গে বৈঠক ডেকেছিল কেন্দ্র। সেই বৈঠকে হাজির ছিলেন কেন্দ্রীয় খাদ্য মন্ত্রকের সচিব সুধাংশু পান্ডে। এই বৈঠকেই বিস্তর আলোচনা করে অবশেষে ভোজ্য তেলের দাম ১৫ টাকা করে কমানোর সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

আবারও বন্ধ হতে পারে স্কুল কলেজ? জানিয়ে দিলেন শিক্ষামন্ত্রী

তাই কিছুটা হলেও গরিব ও মধ্যবিত্ত পরিবারেগুলোর কষ্ট লাঘব হবে। দেশের সাধারণ নাগরিকদের কল্যাণস্বার্থেই এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে বলে জানিয়েছে কেন্দ্র সরকার। আগামী সপ্তাহ থেকেই যাতে কম দামে ভোজ্য তেল বাজারে আনা যায় সেবিষয়ে চেষ্টা চালানো হচ্ছে বলে সূত্রের খবর।

এইরকম আরও নানান গুরুত্বপূর্ণ খবর পাওয়ার জন্য আমাদের ওয়েবসাইটটি ফলো করুন এবং নীচের ডানদিকের টেলিগ্রাম আইকনে ক্লিক করে আজই জয়েন হোন আমাদের টেলিগ্রাম চ্যানেলে