Notice-be-sent-to-every-School-Teachers-They-have-to-reply-within-15-days

আপনি কি স্কুলে শিক্ষকতা করেন? তবে এই খবরটি আপনার জন্য। কিছুদিন পূর্বে একদিকে যখন SSC এবং TET এর মাধ্যমে শিক্ষক নিয়োগের ক্ষেত্রে অনিয়ম নিয়ে সমগ্র পশ্চিমবঙ্গ উত্তাল, অন্যদিকে ঠিক তখনই রাজ্য সরকারের দিকে বারবার অভিযোগের আঙুল উঠছিলো যে, রাজ্য সরকারের তরফে স্কুল শিক্ষকদের (School Teachers) গৃহশিক্ষকতা নিয়ে কোনোরূপ পদক্ষেপ নেওয়া হচ্ছে না। ঠিক তখনই রাজ্য সরকারের তরফে সরকারি স্কুলের কর্মরত শিক্ষকদের টিউশন পড়ানো নিয়ে নতুন নিয়ম জারি করা হয়েছিলো। চলতি বছরের অর্থাৎ ২০২২ সালের ২৭ জুন শিক্ষা দপ্তরের নির্দেশিকা জারি করা হয়েছিলো যে, সরকারি স্কুলে কর্মরত শিক্ষকরা কোনোরূপ টিউশন পড়াতে পারবেন না। রাজ্য সরকারের তরফে জারি করা এই নির্দেশিকায় জানানো হয়েছিলো যে, শুধুমাত্র গৃহশিক্ষকতা নয় যেকোনো কোচিং সেন্টারে সাথেই স্কুলের শিক্ষকদের যুক্ত থাকাটা অপরাধ বলে গণ্য করা হবে। এমনকি বিনামূল্যে টিউশন দেওয়ার ক্ষেত্রেও বাধা দেওয়া হয়েছিল শিক্ষা দপ্তরের তরফে।

শিক্ষা দপ্তরের পক্ষ থেকে জারি করা এই নির্দেশিকায় আরও জানানো হয়েছিলো যে স্কুল শিক্ষকদের গৃহশিক্ষকতা নিয়ে বহু অভিযোগ আসছিলো রাজ্য সরকারের কাছে, এমনকি অনেকক্ষেত্রে স্কুল শিক্ষকদের গৃহশিক্ষকতার ভিডিও বানিয়ে বিভিন্ন সোশ্যাল সাইটে পোস্ট করা হচ্ছিল আর তাতেই বারবার অভিযোগের আঙ্গুল উঠছিলো রাজ্য সরকারের দিকে। এছাড়াও বারংবার অভিযোগ উঠছিলো যে বিভিন্ন জেলায় পশ্চিমবঙ্গ সরকারের কোনো নিয়মের তোয়াক্কা না করেই একাধিক স্কুলের শিক্ষক গৃহশিক্ষকতা করার পাশাপাশি কোচিং সেন্টারে পড়াচ্ছেন। আর তাই এরূপ নিয়ম জারি করা হয়েছিলো বলেই জানানো হয়েছিল শিক্ষা দপ্তরের তরফে। যদিও ওয়েস্ট বেঙ্গল প্রাইভেট টিউটর্স অ্যাসোসিয়েশনের তরফে রাজ্য সরকারের থেকে একধাপ এগিয়ে এমন একটি পদক্ষেপ গ্রহণ করা হয়েছে যার জেরে যেসকল ব্যক্তিরা শিক্ষক পদে রয়েছেন তাদের সমস্যায় পড়তে হতে পারে। তবে অনেকেই জানেন না ওয়েস্ট বেঙ্গল প্রাইভেট টিউটর্স অ্যাসোসিয়েশনের তরফে ঠিক কি পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে। আর তাই আজ আমরা এই পোস্টে রাজ্যের স্কুল শিক্ষকদের টিউশন পড়ানো সমন্ধিত ওয়েস্ট বেঙ্গল প্রাইভেট টিউটর্স অ্যাসোসিয়েশনের এই নতুন পদক্ষেপ সম্পর্কে বিস্তারিত তথ্য আলোচনা করতে চলেছি।

আধার কার্ড জারি করলো নতুন নিয়ম, ডকুমেন্টস আপলোড করতে কবে সকলকে

• চলুন তবে জেনে নেওয়া যাক নতুন কি পদক্ষেপ জারি করা হয়েছে রাজ্য সরকারের তরফে:-
রাজ্যের স্কুল শিক্ষকদের নিয়ে বারংবার বহু অভিযোগের জেরে নাজেহাল রাজ্য সরকারের তরফে কঠিন নিয়ম জারি করা হলেও স্কুল শিক্ষকদের প্রাইভেট টিউশনি একেবারে বন্ধ করাতে ইচ্ছুক প্রাইভেট টিউটর্স অ্যাসোসিয়েশন। আর তাই ওয়েস্ট বেঙ্গল প্রাইভেট টিউটর্স অ্যাসোসিয়েশন তরফে স্কুল শিক্ষকদের প্রাইভেট টিউশনি এবং কোচিং সেন্টারে পড়ানো নিয়ে একটি মামলা দায়ের করা হয়েছিল। যদিও বিভিন্ন কারণে এখনও পর্যন্ত এই মামলার শুনানি হয়নি। কিন্তু ইতিমধ্যেই ওয়েস্ট বেঙ্গল প্রাইভেট টিউটর্স অ্যাসোসিয়েশনের তরফে যে সকল শিক্ষকরা রাজ্য সরকারের নিয়মের তোয়াক্কা না করে প্রাইভেট টিউশন কিংবা কোচিং সেন্টারে পড়াচ্ছেন অথবা অতীতে প্রাইভেট টিউশন পড়িয়েছেন তাদের প্রত্যেকের নামে চিঠি পাঠানো হয়েছে। এই চিঠিগুলিতে শিক্ষক শিক্ষিকারা কেনো প্রাইভেট টিউশন পড়াতে পারবেন না এই বিষয়গুলি সহ আরও নানা কোড অফ কন্ডাক্ট উল্লেখ করা আছে। আর প্রত্যেক শিক্ষক-শিক্ষিকাকে চিঠি প্রাপ্তির ১৫ দিনের মধ্যে চিঠির উত্তর দেওয়ার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

এইরকম আরও নানান গুরুত্বপূর্ণ আপডেট পেতে আমাদের পেজটি ফলো করুন এবং নীচের ডানদিকের আইকনে ক্লিক করে আজই যুক্ত হোন আমাদের টেলিগ্রাম চ্যানেলে